বরিশাল সদর হাসপাতালের চিকিৎসক ড. এমদাদ উল্লাহ করোনা উপসর্গ নিয়ে মুত্যু

অবশ্যই পরুন

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনার উপসর্গ নিয়ে বরিশাল সদর হাসপাতালের চর্ম রোগ বিশেষজ্ঞ ডা. এমদাদ উল্লাহ খানের মৃত্যু হয়েছে। আজ শুক্রবার (১৯ জুন) বিকাল ৫টা ৩৫ মিনিটে হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডের আইসিইউতে তার মৃত্যু হয়।

বরিশাল নগরীর অক্সফোর্ড মিশন রোড এলাকার বাসিন্দা মৃত মজিদ আহম্মেদ খান এর ছেলে ডা. মো. এমদাদুল্লাহ খান (৫৮) শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজের ১২ তম ব্যাচের ছাত্র ছিলেন।

এছাড়া বরিশাল জেনারেল (সদর) হাসপাতালের চর্ম ও যৌন বিভাগের সিনিয়র কনসালটেন্ট পদে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন তিনি। এ নিয়ে বরিশাল বিভাগে করোনা উপসর্গ নিয়ে দু’জন চিকিৎসকের মৃত্যু হয়েছে।

এর পূর্বে প্রথম মৃত্যু হওয়া চিকিৎসক ডা. আনোয়ার হোসেন করোনা আক্রান্ত ছিলেন। ঢাকায় নেওয়া হলে সেখানে প্রাইভেট হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। তিনি বরিশাল নগরীর বৃহতম রাহাত-আনোয়ার হাসপাতালের চেয়ারম্যান ছিলেন।

তবে শুক্রবার মৃত্যু হওয়া ডা. এমদাদুল্লাহ খান করোনা আক্রান্ত ছিলেন কিনা সেটা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য শেবামেক এর আরটি-পিসিআর ল্যাবে পাঠানো হয়েছে।

এবিষয় তথ্য নিশ্চিত করে হাসপাতালের সহকারী পরিচালক (প্রশাসন) ডা. এস.এম মনিরুজ্জামান জানিয়েছেন, ‘ডা. এমদাদুল্লাহকে করোনার উপসর্গ নিয়ে ১৮ জুন বিকালে করোনা ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়।

সেখানে তাঁর শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। পরে দুপুরের দিকে তাঁকে নিবির পর্যবেক্ষনের জন্য ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিট (আইসিইউ) তে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ডা. এমদাদুলের মৃত্যু হয়। ল্যাবের রিপোর্ট পেলে তিনি করোনা আক্রান্ত ছিলেন কিনা তা নিশ্চিত হওয়া যাবে।

সম্পর্কিত সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

কুমিল্লাকে উড়িয়ে প্রথম শিরোপা জয় বরিশালের

অবশেষে বিপিএলের শিরোপা জয়ের স্বাদ পেলো বরিশাল। এর আগে তিনবার ফাইনাল খেললেও শিরোপা ছুঁতে পারেনি দলটি। বিপিএলের দশম আসরের...